রবিবার, ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০১৯, ০৯:৩৩ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
স্বতন্ত্র প্রার্থী ভাইস চেয়ারম্যান পদে মনোনয়ন পত্র জমা দিলেন সালেহ আহমেদ প্রেমের টানে আপন চাচীকে সাথে নিয়ে পালিয়ে গেল ভাতিজা তালেবানের সঙ্গে বসবেন সৌদি যুবরাজ আগামী ২৪ ঘণ্টা বৃষ্টি থাকতে পারে রুস্তমপুর ইউনিয়নের বিভিন্ন স্কুল ও ব্রিজের পরিদর্শন : বিশ্বজিত হেলাল আহমদের সমর্তনে আওয়ামীলীগের কর্মী সভা সংসদ নির্বাচন নিয়ে জাতীয় পার্টির মতবিনিময় ২৭ ফেব্রুয়ারি জামায়াত ক্ষমা চাইলেও বিচার বন্ধ হবে না: ওবায়দুল কাদের আসন্ন নির্বাচনে ভাইস চেয়ারম্যান পদে গোয়াইনঘাটে প্রার্থীরা নির্বাচন চ্যালেঞ্জ করে বিএনপির ৭৪ প্রার্থীর মামলা জার্মানি পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ৯ বছর পর ছাত্রলীগের সঙ্গে আড্ডায় ছাত্রদল ভালোবাসা দিবসে ক্যাটরিনাকে বিয়ে করছেন সালমান! ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ আরও একবার ইতিহাসের পাতায় নাম লেখালেন মাশরাফি বিন মুর্তজা
সেবা না দিলে চিকিৎসকদেরও ওএসডি করা হবে: প্রধানমন্ত্রী

সেবা না দিলে চিকিৎসকদেরও ওএসডি করা হবে: প্রধানমন্ত্রী

সরকারি হাসপাতালে চিকিৎসকরা সেবা না দিলে তাদের ওএসডি করে রাখার নির্দেশ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। রোববার সচিবালয়ে স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রণালয় পরিদর্শনে এসে মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তাদের সঙ্গে মতবিনিময়ের সময় তিনি এ নির্দেশ দেন।

তিনি বলেন, রোগীদের যথাযথ সেবা দিতে হবে।নতুবা আপনাদেরও ওএসডি করা হবে, চাকরি থাকবে না। চিকিৎসকদের দুই বছর ইন্টার্নশিপের ব্যবস্থা করতে হবে। এর মধ্যে এক বছর মেডিকেল কলেজে, অন্যবছর থাকতে হবে উপজেলা পর্যায়ের হাসপাতালে। আগামীতে বায়োমেট্রিক পদ্ধতিতে চিকিৎসকদের হাসপাতালে উপস্থিতি নিশ্চিত করা হবে। বায়োমেট্রিক পদ্ধতি চালু করতে হবে।

তিনি বলেন, এখন নার্সদের উচ্চশিক্ষার সুযোগ আছে। নার্সরা সেবা দেবে না- এটা ঠিক নয়। নার্সদের দায়িত্ব সঠিকভাবে পালন করতে হবে। শিগগিরই নার্সদের কর্মপরিধি আবারো মন্ত্রণালয়কে সুনির্দিষ্টকরণের তাগিদ দেন তিনি।

বেসরকারি মেডিকেল কলেজের শিক্ষার মান বাড়ানোর তাগিদ দিয়ে তিনি বলেন, বেসরকারি মেডিকেল কলেজের প্রতি আরও নজর দেয়া প্রয়োজন। মান ও সেবা দুটোরই উন্নয়ন প্রয়োজন। আগামীতে প্রতিটি বিভাগীয় শহরে আরও বড় মাপের হাসপাতাল গড়ে তোলা হবে।

প্রধানমন্ত্রী জানান, আগামীতে ঢাকা মেডিকেল কলেজ আরো সম্প্রসারণ করা হবে। আটটি বিভাগীয় শহরে ১০০ শয্যা বিশিষ্ট ক্যান্সার হাসপাতাল স্থাপন করা হবে। ১০ হাজার চিকিৎসক নিয়োগের প্রক্রিয়া চলমান রয়েছে৷

এসময় তিনি স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বিভিন্ন চলমান কার্যক্রম ও অগ্রগতি প্রধানমন্ত্রী তদারকি করেন। এছাড়া মন্ত্রণালয়ের একশ দিনের পরিকল্পনা বিষয়ে আলোচনা করেন সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের সঙ্গে। বর্তমান সরকারের নির্বাচনী ইশতেহারে স্বাস্থ্যসেবা গুরুত্ব পেয়েছে। ইশতেহার বাস্তবায়নেও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রয়োজনীয় দিকনির্দেশনা দেন।

image_print

সংবাদ শেয়ার করুন

মন্তব্য বন্ধ আছে।





ক্যালেন্ডার

ফেব্রুয়ারী 2019
সোম বুধ বৃহ. শু. শনি রবি
« জানু.    
 123
45678910
11121314151617
18192021222324
25262728  



© All rights reserved © 2017 Uttarancholsylhet.com
 
Design & Developed BY TC Computer